সামাজিক দুরত্ব না মেনে অতিরিক্ত শ্রমিক বহনের দায়ে থিয়ানিস গার্মেন্টস এর দুটি বাস আটক ও ৫০ হাজার টাকা জরিমানা

জাহাঙ্গীর আলম,বিশেষ প্রতিনিধিঃ সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিত করতে এবং স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসন নিয়মিত ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করছে। এরই ধারাবাহিকতায় আজ নগরীর বিভিন্ন স্থানে জেলা প্রশাসনের ম্যাজিস্ট্রেটগণ  ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করেন। এসময় সিইপিজেড এর এক গার্মেন্টসকে স্বাস্থ্যবিধি না মেনে ধারণক্ষমতার অতিরিক্ত শ্রমিক পরিবহন করার দায়ে দুটি বাস আটক করে এবং ৫০০০০ টাকা জরিমানা করা হয়।
আজ ২৮ মে  সকাল ১০ ঘটিকা থেকে বিকেল ৩ ঘটিকা পর্যন্ত পরিচালিত এসব অভিযানে নেতৃত্ব দেন চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট শিরীন আক্তার,  নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মুশফিকীন নূর ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রেজওয়ানা আফরিন।
চট্টগ্রাম মহানগরীর বন্দর এলাকায় জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রেজওয়ানা আফরিন কর্তৃক পরিচালিত ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযানে  বন্দর ভবনের সামনে থেকে থিয়ানিস গার্মেন্টস এর দুইটি বাস স্বাস্থ্যবিধি না মেনে ধারণক্ষমতার অতিরিক্ত শ্রমিক পরিবহন করার দায়ে আটক করে এবং সিইপিজেড এর সংশ্লিষ্ট গার্মেন্টসকে ৫০০০০ টাকা জরিমানা করেন ভ্রাম্যমান আদালত। এছাড়াও অভিযান কালে সামাজিক দুরত্ব বজায় না রাখা ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে না চলায় আরো ৩ টি পৃথক মামলায় ২৩০০ টাকা জরিমানা করেন ভ্রাম্যমান আদালত।
অন্যদিকে  চট্টগ্রাম মহানগরীর সদরঘাট, কোতোয়ালি, ডবলমুরিং, হালিশহর  এলাকায় সামাজিক দুরত্ব নিশ্চিতকরণে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করেন জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট শিরীন আক্তার। এসময়  সামাজিক দূরত্ব না মেনে অধিক সংখ্যক যাত্রীসহ বেশ কিছু ভাড়ায় চালিত গাড়ি , মাইক্রোবাস ও সিএনজি অটোরিকশায় চলাচল করতে দেখা যায় বলে জানান তিনি। এসময়  ৬ টি পৃথক মামলায়  ১৪০০ টাকা জরিমানা করে ভ্রাম্যমান আদালত।
এছাড়া খুলশী,পাচলাইশ চান্দগাও, চকবাজার,বায়েজিদ এলাকায় নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মুশফিকীন নূর পরিচালিত মোবাইল কোর্ট এর মাধ্যমে  করোনার প্রাদুর্ভাব নিরসনের লক্ষ্যে জনগনকে সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিত করার ব্যাপারে সচেতন করা হয়।চান্দগাও,বায়েজিদ এবং খুলশী এলাকায় অতিরিক্ত যাত্রী পরিবহনকারী সিএনজি চালকদের কে কঠোরভাবে সর্তক করে ভ্রাম্যমান আদালত।