শুটিংয়ে ফিরেছেন চিত্রনায়িকা শাহনূর

টানা তিন মাস গৃহবন্দী হয়ে থাকার পর অবশেষে আগামীকাল শুটিং-এ ফিরেছেন দর্শকপ্রিয় চলচ্চিত্রাভিনেত্রী শাহনূর। গুনী নাট্যনির্মাতা সাদেক সিদ্দিকীর গল্পে ও পরিচালনায় আগামী ঈদের জন্য নির্মাণ চলতি ঈদ বিশেষ নাটক ‘বউ বাড়ি’ নাটকের কাজ শুরু করছেন শাহনূর। আগামীকাল শুক্রবার থেকে রাজধানীর ইস্কাটনের প্রিয়াংকা শুটিং হাউজে নাটকটির দৃশ্যায়নের কাজ শুরু হচ্ছে বলে জানান শাহনূর। এই নাটকে শাহনূর বড় বউয়ের চরিত্রে অভিনয় করবেন। এর আগেও শাহনূর একই পরিচালকের পরিচালনায় সিনেমা ও নাটকে অভিনয় করেছেন। সাদেক সিদ্দিকীর নাটকের মধ্যদিয়েই তিন মাস পর করোনা’ক্রান্তি সময় কাটিয়ে অভিনয় ফিরছেন শাহনূর।
শাহনূর বলেন,‘ স্বাস্থ্য বিধি মেনেই আমরা সবাই শুটিং-এ অংশ নিচ্ছি। শ্রদ্ধেয় সাদেক সিদ্দিকী ভাইয়ের নির্দেশনায় এর আগেও আমি সিনেমা, ধারাবাহিক নাটকে অভিনয় করেছি। তার কাজের প্রতি আমার যথেষ্ট আস্থা আছে। এছাড়াও আস্থা আছে যে তার ইউনিটে নিয়ম মেনেই শুটিং করা হবে। যে কারণে বেশ কয়েকজন নাট্যনির্দেশকের কাছ থেকে স্ক্রিপ্ট পেলেও আস্থা না করতে পারার কারণে শুটিং করিনি। কারণ করোনা’র এই সময়কালে স্বাস্থ্য বিধি মেনে শুটিং করাটা পরিচিত ইউনিট ছাড়া ভরসা রাখতে পারছিনা। যেহেতু সাদেক সিদ্দিকী ভাইয়ের ইউনিটের সাথে আমি পরিচিত এবং আগেও কাজ করেছি। তাই বউ বাড়ি নাটকের কাজটি করছি আমি। আশা করছি এটি একটি ভালো কাজ হবে। কারণ নাটকের গল্পটা আমার কাছে ভালোলেগেছে। নাটকে আমি অভিনয় করছি বড় বউয়ের চরিত্রে, আমার চরিত্রটি খুউব গুরুত্বপূর্ণ একটি চরিত্র।’ করোনা’র এই সময়কালে দীর্ঘ তিনমাস কোন শুটিং করেননি শাহনূর। করোনা সমস্যা শুরু হবার আগে তিনি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নিয়ে নির্মিত দুটি স্বলদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছিলেন।
যার একটি তিনি নিজেই নির্মাণ করেছিলেন এবং অন্যটি নির্মাণ করেছিলেন তাজু কামরুল। শাহনূর নির্মাণ করেছিলেন ‘একটি বাংলাদেশ’ চলচ্চিত্রটি। এর গল্প ভাবনা শাহনূরের নিজের। তাজু কামরুল নির্মাণ করেছিলেন ‘বঙ্গবন্ধু দ্য গ্রেট লিডার’। দুটি চলচ্চিত্রই শাহনূরের নিজস্ব প্রযোজনা সংস্থা ‘মৌ মাল্টিমিডিয়া’র ব্যানারে নির্মিত হয়েছে। এদিকে করোনা’র এই সময়কালে অসহায় মানুষদের পাশে দাঁড়িয়েছেন শাহনূর। ঢাকার বিভিন্ন এলাকার অসহায় মানুষদের পাশে যেমন দাঁড়িয়েছেন তিনি। ঠিক তেমনি তার নিজের গ্রামের বাড়ি নড়াইলে’র বিভিন্ন শ্রেণীর অসহায় মানুষদের পাশে দাঁড়িয়েছেন সহযোগিতার হাত নিয়ে। আবার একজন অভিনেতার মহিলা মাদ্রাসার শিক্ষার্থীদের পাশেও সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন শাহনূর। করোনার এই ক্রান্তিকালে তিনি সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়ে মানবিকতার পরিচয়ই দিয়েছেন। উল্লেখ্য এর আগে সাদেক সিদ্দিকীর নির্দেশনায় শাহনূর ‘ভালোবাসা ছাড়া কেউ কী বাঁচে’ চলচ্চিত্রে এবং নাটক ‘রঙ্গের সংসার’, ‘মনেরই রঙ্গে রাঙ্গাবো’তে অভিনয় করেছেন।