শহীদের স্বরণে ক্লান্তি নেই বাঙালির  প্রভাতফেরিতে মানুষের ঢল। 

মোঃ রাকিব হাসান স্টাফ রিপোর্টার:  বেলা বারার সাথে সাথে দলে দলে
বুয়েটের পলাশি মোড় থেকে শহিদ মিনারের মূল গেট পর্যন্ত শ্রদ্ধা জানাতে আসা মানুষদের পদচারণায় মুখরিত হয়ে ওঠে পুরো শহিদ মিনার এলাকা। তিল ধারনের ঠাঁই নেই । বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও সেচ্ছাসেবী সংগঠনের নেতাকর্মী ও সদস্যরা ব্যানার-ফেস্টুন হাতে নিয়ে মৃদু পায়ে এগিয়ে যাচ্ছে শহীদ মিনারে।  তবে শহিদবেদীতে প্রবেশের আগে তল্লাশির কারণে গতি কিছুটা থকমে যায়। এতে করে সৃষ্টি হয় দীর্ঘ অপেক্ষার জট ও ক্লান্তির যাত্রা।
তবুও কেউ থেমে নেই এ যেনো শান্তির পথ পারি দিতে আশা মানুষের মিছিল। প্রতিবারের মতো এবারো সকালের সূর্য উঠার পরে থেকেই শুরু হয় নানা আনুষ্ঠানিকতা। বরাবরের মতো শেখ রাসেল মেমোরিয়াল সমাজকল্যাণ সংস্থার পক্ষ থেকেও জানানো হয় গভীর শ্রদ্ধা ও ভালোবাসা। এমন পূষ্প স্তবক অর্পণ করেন শেখ রাসেল মেমোরিয়াল সমাজকল্যাণ সংস্থার প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা শেখ সিদ্দিক ও সাধারণ সম্পাদক আবুল হাসেম। এছাড়াও আরও উপস্থিত ছিলেন কোষাধ্যক্ষ মোঃ রুবেল সিকদার সহ সংগঠনের কেন্দ্রীয় নেতাকর্মী।
আরও শ্রদ্ধা জানাতে আসেন  আওয়ামী লীগ, বিএনপি, বাসদ, বীর মুক্তিযোদ্ধা সাদেক হোসেন খোকা স্মৃতি সংসদ, বাংলাদেশ স্কাউটস, বাংলাদেশ সুপ্রিমকোর্ট আইনজীবী সমিতি, যুবদল, তথ্য মন্ত্রণালয়।এছাড়াও বিভিন্ন সংগঠনের মধ্যে আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগ, ইসলামিক ফাউন্ডেশনের বঙ্গবন্ধু পরিষদ, ফায়ার ফাইটিং ইকুইপমেন্ট ওনার্স এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ,বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়ন, বাংলাদেশের ওয়াকার্স পার্টি, শহীদ মিনারে ফুল দিয়ে শহীদদের শ্রদ্ধা জানিয়েছে।