নবাবগঞ্জে নির্মাণাধীন সেপটিক ট্যাংকে কাজ করতে নেমে দুই শ্রমিকের মৃত্যু

মাকসুমুল মুকিম,  দোহার-নবাবগন্জ (ঢাকা): ঢাকার নবাবগঞ্জ উপজেলার বক্সনগর ইউনিয়নের দীঘিরপাড় খালপাড় এলাকায় নির্মাণাধীন সেপটিক ট্যাংকে কাজ করতে নেমে লুৎফর রহমান (৩৫) ও সঞ্জয় দাস (২২) নামে দুই শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। সোমবার বিকেলে তাদের মরদেহ উদ্ধার করা হয়। নিহত লুৎফর উপজেলার বক্সনগর ইউনিয়নের বালুরচর গ্রামের মোক্তার হোসেনের ছেলে ও সঞ্জয় দিঘিরপাড় খালপাড় গ্রামের রঞ্জিত দাসের ছেলে।
স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, সোমবার সকালে উপজেলার দিঘিরপাড় খালপাড় গ্রামের সুমন মিয়ার বাড়িতে ঠিকাদার জমসের আলী নির্মাণাধীন সেপটিক ট্যাংকের সেন্টারিংয়ের কাঠ-বাঁশ খুলতে লুৎফর রহমান ও সঞ্জয় দাসকে পাঠায়। দুপুরের দিকে ঠিকাদার জমসের আলী তাদের মুঠোফোন বন্ধ পেয়ে তাদের খোঁজ নিতে সঞ্জয় দাসের ছোট ভাই প্রীতমকে পাঠায়। প্রীতম সেফটি ট্যাংকের ভিতরে লুৎফর রহমান ও সঞ্জয় দাস পরে থাকতে দেখে বাড়িতে খবর দিলে দুই পরিবারের স্বজনরা এসে তাদের মৃতদেহ উদ্ধার করে নবাবগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাদের মৃত ঘোষণা করেন। নবাবগঞ্জ থানা পুলিশ খবর পেয়ে লাশ থানায় নিয়ে যায়।
নবাবগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. সিরাজুল ইসলাম শেখ জানান, মৃত্যুর কারণ জানতে তদন্ত চলছে। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য ঢাকায় প্রেরণ করা হয়েছে।